করোনাভাইরাস আতঙ্কে অবশেষে বাতিল হয়ে গেল বার্সেলোনায় অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া মোবাইল ওয়ার্ল্ড কংগ্রেস। বুধবার এই ঘোষণা দেয় অনুষ্ঠানটির আয়োজক প্রতিষ্ঠান জিএসএমএ টেলিকম। যা আয়োজনের ৩৩ বছরের মধ্যে প্রথম বাতিল হওয়ার ঘটনা!

করোনাভাইরাস আতঙ্কে বাতিল করা হলো মোবাইল ওয়ার্ড কংগ্রেস ২০২০
ছবি: ইন্টারনেট থেকে সংগৃহীত

আগামী দিনের বিশ্বের মোবাইল যোগাযোগের ক্ষেত্রে কি ধরনের পরিবর্তন আসছে, কোন প্রযুক্তির হ্যান্ডসেট বাজার মত করবে তারই ধারণা পাওয়া যায় মোবাইল ওয়ার্ল্ড কংগ্রেসে। প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান থেকে শুরু করে প্রযুক্তিপ্রেমী সবাই অপেক্ষায় থাকে চার দিনের এই আয়োজনকে ঘিরে।

প্রতি বছরের মতো এবারও স্পেনের বার্সেলোনায় ২৪ থেকে ২৭ ফেব্রুয়ারী হতে যাচ্ছিল এবং এর আয়োজনে প্রস্তুতিও প্রায় শেষের দিকে। যদিও পুরো আয়োজনকে ঘিরে চোখ রাঙা ছিল করোনাভাইরাসের হুমকি।

বার্সেলোনার উপ মেয়র জায়মন কলবর্নি বলেছেন, “মোবাইল কংগ্রেসের আয়োজকরা দৃঢ়প্রতিজ্ঞ এবং তাই তারা আমাদের অনুষ্ঠানটি পূর্ব নির্ধারিত সময়ে রাখতে বলছে। প্রশাসন, সরকার, আঞ্চলিক সরকার এবং ভেন্যু কর্তৃপক্ষের পক্ষ থেকে আমরা সার্বিক সহযোগিতা দিয়ে যাবো যাতে আয়োজনটি স্বাভাবিক ভাবে সম্পন্ন হয় এবং জননিরাপত্তা ও যোগাযোগ ব্যবস্থা স্বাভাবিক থাকে। এছাড়াও জনগণের স্বাস্থ্য সুরক্ষায় বিভিন্ন পদক্ষেপ নিতে আমরা স্বাস্থ্য কর্তৃপক্ষের মানদণ্ড অনুসরণ করছি।”

করোভাইরাসের প্রকোপ বাড়তে তাকায় অংশগ্রহণের তালিকা থেকে একে একে নাম প্রত্যাহার করতে থাকে বিশ্বের বড় বড় প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানগুলো। এলজি, নকিয়া, সোনি, ভোডাফোন, বিটি, ফেসবুক, অ্যামাজন সহ প্রায় চল্লিশটি প্রতিষ্ঠান নিজেদের প্রত্যাহার করে নেয় মোবাইল ওয়ার্ল্ড কংগ্রেসের এবারের এ আয়োজন থেকে।

তারপরও বুধবার পর্যন্ত প্রদর্শনী আয়োজনের সিদ্ধান্তে অটল ছিল জিএসএমএ। শেষ পর্যন্ত ২ সপ্তাহ বাকি থাকতে বাতিল করা হলো এবারের আয়োজন। যা ৩৩ বছরের ইতিহাসে প্রথমবারের মতো।

জিএসএম এর প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা-জওয়ান হফম্যান বলেছেন, “দুর্ভাগ্যবশত বার্সেলোনায় মোবাইল ওয়ার্ল্ড কংগ্রেস ২০২০ আয়োজন করা সম্ভব হচ্ছে না। জনগণের স্বাস্থ্য ও নিরাপত্তা বিষয় বিবেচনা করে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।”

তিনি আরও বলেন, “করোনাভাইরাসের সংক্রমনের ফলে ভ্রমণ জটিলতা এবং অন্যান্য জটিলতা এই ইভেন্ট আয়োজনকে অসম্ভব করে তুলেছে। তাই আমরা এটি বন্ধ ঘোষণা করছি। এটা আমাদের কাছে একটি বিষাদময় দিন। কিন্তু এই পরিস্থিতি শিগগিরই ঠিক হবে বলে আমি বিশ্বাস করি। ২০২১ সালে বার্সেলোনাতে আমরা আবারো মোবাইল ওয়ার্ল্ড কংগ্রেস আয়োজন করব।”

মোবাইল ওয়ার্ল্ড কংগ্রেস ১৪,১০০ খণ্ডকালীন চাকরির সুযোগ তৈরি করে। আর বার্সেলোনার অর্থনীতিতে যোগ করে প্রায় ৫৫ কোটি ডলার। ইভেন্ট বাতিল হওয়ায় এই আয় থেকে বঞ্চিত হবে দেশটি।

অন্যদিকে মোবাইল ওয়ার্ল্ড কংগ্রেসে অংশ নিতে কোটি টাকা বিনিয়োগ করেছে প্রতিষ্ঠানগুলো। তাদের আর্থিক ক্ষতিপূরণের বিষয়টি কী হবে তা নিয়ে শুক্রবার বৈঠকে বসার কথা জানিয়েছে আয়োজক কর্তৃপক্ষ।

জিএসএম এর মহাপরিচালক ম্যাটস গ্র্যান্ডি বলেছেন, “এটা একটি প্রাকৃতিক বাধা এবং আমরা বিনা পলিসি নিয়ে এখনই কোনও মন্তব্য করতে পারছি না। কিন্তু এটা বুঝতে হবে যে প্রাকৃতিক পরিস্থিতিকে মেনে নেয়া ছাড়া উপায় নাই। এটা শুধু আর্থিক বিষয় নয় সাথে স্বাস্থ্য ও নিরাপত্তা এবং ইভেন্টের সুনাম জড়িত।”

গেল বছর বিশ্বের ২০০ টি দেশের প্রায় ১ লাখ মানুষ অংশ নিয়েছিল মোবাইল কংগ্রেসে। যেখানে ছিল প্রযুক্তি খাতের বড় বড় সব প্রতিষ্ঠান। এবারের আয়োজনে দেড় লক্ষ অংশগ্রহণকারী আশা করেছিল বার্সেলোনা।
©business report