সার্চ ইন্জিন অপটিমাইজেশন সম্পর্কে আমাদের অনেকেরই কম বেশি ধারনা আছে! আপনি যদি সার্চ ইন্জিন থেকে খুব বেশি ভিসিটর পেতে চান অর্থাৎ আপনার আর্টিকলটি রেঙ্ক করাতে চান!

তাহলে আপনাকে অবশ্যই একটি ভালো মানের এসইও ফ্রেন্ডলি কনটেন্ট লিখতে হবে! কিন্তু কিভাবে লিখবেন! এর জন্য আপনাকে এই পোষ্টটি শেষ পর্যন্ত দেখতে হবে!

তোহ আজ এই পোস্টে আমি আপনাদের সাথে শেয়ার করবো আপনি কিভাবে একটি ফুল এসইও ফ্রেন্ডলি কনটেন্ট লিখবেন!

কিভাবে এসইও ফ্রেন্ডলি পোস্ট লিখবেন

১. কিইওয়ার্ড নির্বাচনঃ- আপনি যদি ভালো একটি আর্টিকেল লিখতে চান তাহলে আপনাকো অবশ্যই একটি ভালো কিইওয়ার্ড সিলেক্ট করতে হবে!

এর জন্য আপনাকে অবশ্যই মাথায় রাখতে হবে যে আপনি এমন একটি কিইওয়ার্ড সিলেক্ট করবেন যেটা নিয়ে কম লোক কাজ করছে! এবং এতে করে আপনি খুব সহজেই ভালো রেঙ্কিং পেতে পারেন!

অবশ্যই আরো একটি জিনিস এবং এটা খুবই গুরুত্বপূর্ণ আর তা হলো আপনি যে কিইয়ার্ড সিলেক্ট করলেন তার দ্বারা কতজন ভিসিটর আনতে আপনি সক্ষম হবেন!

২.আর্টিকেলঃ- এটা অবশ্যই নির্ধারন করবে আপনার কেইওয়ার্ডের উপর! তবুও চেষ্টা করতে হবে যেকোন আর্টিকেল কমপক্ষে ৫০০-৬০০ ওয়ার্ডের লিখতে!

কেননা আপনার বেশি ওয়ার্ডের আর্টিকেল আপনার রেঙ্কিং এ ভালো ভুমিকা রাখবেন! তবে অবশ্যই আপনার কনটেন্ট গুলো হতে হবে ইউনিক!

৩.টাইটেলঃ- এখন প্রশ্ন হলো কিভাবে এসইও টাইটেল লিখবেন! যেহেতু এটা আপনার রেঙ্কিং এ গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা রাখবে! তবে এসইও ফ্রেন্ডলি টাইটেল লিখতে হলে অবশ্যই ৫-৬ শব্দের মধ্যে লিখতে হবে!

তবে চেষ্টা করবেন আপনার টাইটেলকে যতেষ্ট ইন্টাররেস্টিং করে লিখতে! কারন অনেক ক্লিক পেতে হলে আপনাকে এটার উপর নজর দিতে হবে!

৪.মেটা ডেসক্রিপশনঃ- আপনার আর্টিকেলকে এসইও ফ্রেন্ডলি করতে হলে অবশ্যই মেটা ডেসক্রিপশন এর উপর নজর দিতে হবে!

একটি এসইও ফ্রেন্ডলি কনটেন্ট লিখতে হলে আপনাকে অবশ্যই মেটা ডেসক্রিপশন এ ১৫৬ শব্দের লিখতে হবে! তবে আপনাকে অবশ্যই এটার মধ্যে আপনার আর্টিকলের সম্পর্কে লিখতে হবে!

৫.উপযুক্ত হ্যাডিংঃ- আপনার আর্টিকেলের জন্য উপযুক্ত হ্যাডিং তৈরী করতে হবে! h1,h2,h3,h4,h5, ইত্যাদি ট্যাগ ব্যবহার করতে পারেন! এতে করে আপনার আর্টিকেল ভালোভাবে বুঝতেও সবার সুবিধা হবে!

৬.ইমেজঃ- আপনি যদি গুগল থেকে কোন ফটো ডাউনলোড দেওয়ার পর তা আপনার কনটেন্টর মধ্যে আপলোড দিতে চান তাহলে আপনাকে কয়েকটা বিষয় মাথায় রাখতে হবে!

প্রথমত আপনি যদি ইমেজ এর সাইজ এবং নাম পরিবর্তন না করেন তাহলে আপনার ইমেইজটি কপিরাইট বলে গন্য হবে! তার জন্য আপনাকে এই কাজগুলো করতে হবে!

আর ইমেজ এর একটি উপযুক্ত টাইটেল দিতে হবে! যার দ্বারা কেউ আপনার কিইওয়ার্ড লিখে সার্চ দিলে আপনার দেওয়া ফটোটি পেতে পারে!

৭.ট্যাগঃ- আপনাকে অবশ্যই আপনার আর্টিকেল এর জন্য ৩ টি ট্যাগ যোগ করতে হবে! এবং লেখার বিভিন্ন যায়গায় আপনার কিইওয়ার্ডটি বসাতে হবে!

৮.হাইপার লিংকঃ- আপনার আর্টিকেলের যেকোন যায়গায় কমপক্ষে একটি হাইপার লিঙ্ক দিতে হবে!

৯.শর্ট লিংকঃ- আপনি যদি একটি এসইও ফ্রেন্ডলি কনটেন্ট লিখতে চান তাহলে আপনাকে এর জন্য একটি ছোট লিঙ্ক দিতে হবে! কারন ছোট লিঙ্ক আপনার রেঙ্কিং এ ভালো ভুমিকা রাখবে!

এই সেই প্রসেস এসইও ফ্রেন্ডলি আর্টিকেল লিখার!
আশা করি ভালো লেগেছে!
ধন্যবাদ সাথে থাকার জন্য!

ভালো লাগলে ঘুরে আসুন আমার ছোট ওয়েবসাইট থেকেঃ-

আমার ব্লগ সাইট

ধন্যবাদ!!